ঢাবির হলে ফিরল সেই তিন ছাত্রী 


ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কবি সুফিয়া কামাল হল থেকে বের করে দেয়া তিন ছাত্রী হলে ফিরেছে। শুক্রবারই তিনজন হলে ফিরে আনা হয়েছে।


হলের প্রাধ্যক্ষ অধ্যাপক সাবিতা রিজওয়ানা চৌধুরী বলেন, ‘শুক্রবার তিনজন হলে এসেছেন। মেয়েদের কাউন্সিলিং করার জন্য অভিভাবকরা নিয়ে গিয়েছিল, আবার দিয়ে গেছে।’

ওই তিন ছাত্রী হলেন-গণিত বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী শারমীন শুভ, থিয়েটার অ্যান্ড পারফরমেন্স স্টাডিজ বিভাগের চতুর্থ বর্ষের শিক্ষার্থী কামরুন্নাহার লিজা এবং গণিত বিভাগের পারভীন।

বৃহস্পতিবার রাতে সুফিয়া কামাল হলের তিন ছাত্রীকে হলত্যাগে বাধ্য করা হয়েছে এমন অভিযোগে রাত দুইটার দিকে হলটির সামনে যান বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের নেতারা।

তাদের অভিযোগ, যারা কোটা সংস্কার আন্দোলনে যুক্ত ছিলেন, তাদের ডেকে ডেকে তদন্তের নামে হয়রানি করছে হল কর্তৃপক্ষ। এরপর শুক্রবার বিক্ষোভ কর্মসূচি ঘোষণা করে সেখান থেকে চলে আসেন তারা।

তবে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের পক্ষ থেকে জানানো হয়, ওই ছাত্রীদের হল থেকে বের করে দেয়া হয়নি। তাদের অভিভাবকদের হাতে তুলে দেয়া হয়েছে।

তিন ছাত্রীকে হলত্যাগে বাধ্য করার প্রতিবাদে শুক্রবার বিকালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের রাজু ভাস্কর্যের সামনে বিক্ষোভ করে কোটা সংস্কারের দাবিতে আন্দোলন করা সংগঠনটি। এ সময় হল থেকে বের করে দেয়া ছাত্রীদের ২৪ ঘণ্টার মধ্যে হলে ফেরত আনার দাবি জানান তারা। তা না হলে কঠোর আন্দোলনের হুঁশিয়ারি দেয়া হয়।

গভীর রাতে ছাত্রীদের এভাবে বের করে দেয়াকে বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাসে একটি কলঙ্কজনক অধ্যায় হিসেবে বর্ণনা করে প্রাধ্যক্ষের অপসারণ দাবি করেন তারা।

সুফিয়া কামাল হল প্রাধ্যক্ষ সাবিতা রিজওয়ানা জানান, ‘শুক্রবার তিন ছাত্রী হলে এসেছে। তাদের মধ্যে দুই জন শুক্রবার দুপুরে এবং একজন বিকাল চারটার দিকে হলে ফিরে এসেছে। দুইজনের সঙ্গে আমার দেখা হয়েছে। তারা বিশ্ববিদ্যালয়ের আন্তঃফুটবল খেলায় অংশগ্রহণ করেছে।’

একই কথা বলেছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক গোলাম রব্বানীও।  তিনি জানান, ওই তিন শিক্ষার্থী এখন হলে অবস্থান করছেন।

Post a Comment

বাংলাদেশ

[National][fbig1]

ঢাকা উত্তর

[Dhaka North][slider2]

ঢাকা দক্ষিন

[Dhaka South][slider2]

আন্তর্জাতিক

[International_News][gallery2]

ঢাকা উপজেলা

[Dhaka Upazila][fbig2 animated]

রাজনীতি

[political_news][carousel2]

অপরাধ

[Crime][slider2]
Powered by Blogger.