গাজীপুর মহানগরের টঙ্গীর খাঁপাড়ার মোল্লাবাড়ি এলাকায় তমাল নামে এক শিশুকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। বুধবার রাতে এ ঘটনা ঘটে। 


পরে পরিবারের লিখিত অভিযোগের ভিত্তিতে দোকান মালিক মো. আহসান উল্লাহ (৩২) ও তমালের বন্ধু নাজমুল মিয়াকে (১৪) আটক করেছে পুলিশ। নিহত তমাল (১৪) শেরপুর সদরের তিরশা গ্রামের সোহরাব আলীর ছেলে। সে টঙ্গীর আউচপাড়া এলাকায় আটক আহসান উল্লাহর টাইলসের দোকানে কর্মচারী ছিল।

নিহতের ভাই বাবু মিয়া জানান, স্থানীয় বাদশা মিয়ার বাড়িতে ভাড়া থেকে তমাল আহসান উল্লাহর টাইলসের দোকানে কাজ করত। প্রতিদিন রাত ১০টা-১১টার মধ্যে সে বাসায় ফিরত। কিন্তু বুধবার রাত ১১টার পরও না ফেরায় তার মোবাইল ফোনে কল দেয়া হলে কেউ রিসিভ করেনি।

তিনি বলেন, পরে রাত সোয়া ১১টার দিকে দোকান মালিক আহসান উল্লাহ ও তমালের বন্ধু নাজমুল খবর দেন- স্থানীয় সাবেক কাউন্সিলর নাসির উদ্দিন মোল্লার নির্মাণাধীণ ভবনের এক কোণে অচেতন অবস্থায় তমাল পড়ে আছে।

পরে এলাকাবাসী ও স্বজনেরা উদ্ধার করে টঙ্গী সরকারি হাসপাতালে নিলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। এ ব্যাপারে রাতেই তমালের মা হুজুরা বেগম বাদী হয়ে আহসান উল্লাহকে প্রধান এবং অজ্ঞাত আরো ১০/১২ জনকে আসামি করে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন। টঙ্গী থানার এসআই মো. ছিদ্দিকুর রহমান জানান, তমালের লাশ টঙ্গী সদর হাসপাতালে রয়েছে। নিহতের মাথায় জখমের চিহ্ন রয়েছে। এ ঘটনায় দু’জনকে আটক করা হয়েছে।

Post a Comment

বাংলাদেশ

[National][fbig1]

ঢাকা উত্তর

[Dhaka North][slider2]

ঢাকা দক্ষিন

[Dhaka South][slider2]

আন্তর্জাতিক

[International_News][gallery2]

ঢাকা উপজেলা

[Dhaka Upazila][fbig2 animated]

রাজনীতি

[political_news][carousel2]

অপরাধ

[Crime][slider2]
Powered by Blogger.