রামপাল বিদ্যুৎ কেন্দ্র নিয়ে করা অভিযোগ অনুমান, আবেগ এবং জ্যোতিষ বিদ্যা নির্ভর বলে দাবি করেছেন আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ।

রামপাল নিয়ে অভিযোগ অনুমান নির্ভর : হাছান মাহমুদ


তিনি বলেন, ‘এই নিয়ে যারা সমালোচনা করছেন তারা বিজ্ঞান নয়, অনুমান ও ষড়যন্ত্র নির্ভর কথা বলছে এবং তা স্পষ্ট উদ্দেশ্য প্রণোদিত। যে গোষ্ঠী পদ্মাসেতু ইস্যুতে বাংলাদেশকে দুর্নীতিগ্রস্ত প্রমাণ করতে চেয়েছিল তারাই ব্যর্থ হয়ে এখন রামপাল ইস্যু নিয়ে জনগণকে বিভ্রান্ত করার চেষ্টা করছেন। ’ 

হাছান মাহমুদ আজ বৃহষ্পতিবার বিকেলে আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার ধানমন্ডিস্থ রাজনৈতিক কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এই কথা বলেন। সুন্দরবন রক্ষা জাতীয় কমিটির সংবাদ সম্মেলনে দেয়া বক্তব্যের প্রতিবাদে এই সংবাদ সম্মেলন আয়োজন করা হয়।

‘রামপাল নিয়ে সরকার দেশে-বিদেশে অসত্য তথ্য দিয়ে যাচ্ছে। ভারতের এক্সিম ব্যাংকের সঙ্গে যে চুক্তি হয়েছে, সে বিষয়ে কোনো তথ্য দিচ্ছে না। ’ সুলতানা কামালের এমন বক্তব্যের জবাবে হাছান মাহমুদ বলেন, ‘সরকার জনগণকে বিভ্রান্ত করছেন না। সুলতানা কামালের প্রতি সন্মান রেখে আমি বলছি, তিনিসহ যারা এ নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন, তারাই জনগণকে বিভ্রান্ত করছেন। এক্সিম ব্যাংক ভারত সরকারের অনুমতি নিয়ে আন্তর্জাতিক চুক্তির মাধ্যমে অর্থায়ন করছে। তাই এটা নিয়ে প্রশ্ন তোলা অবান্তর। ’

তিনি বলেন, রামপালে বিদ্যুৎ কেন্দ্রের আশাপাশের এলাকার পরিবেশ রক্ষায় প্রথমে সুপার ক্রিটিকাল পদ্ধতি ব্যবহার করার কথা ছিল। কিন্তু সরকার অধিকতর নিরাপত্তার জন্য আল্ট্রা সুপার ক্রিটিক্যাল পদ্ধতি ব্যবহার করছে। এ জন্য যন্ত্রপাতি আমদানি করছে সরকার। রামপাল বিদ্যুৎ কেন্দ্রের নি:সরিত ছাই কিনতে বাংলাদেশের বিভিন্ন সিমেন্ট কারখানা এখনই যোগাযোগ করছে বলেও জানান হাছান।  

রামপাল বিদ্যুৎ কেন্দ্র সরানোর কোন পরিকল্পনা সরকারের আছে কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে আওয়ামী লীগের প্রচার সম্পাদক বলেন, আমাদের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, সকল প্রকার সুরক্ষা নিয়েই আমরা রামপাল বিদ্যুৎ কেন্দ্র নির্মাণ করছি। তাই এ প্রকল্প অন্যত্র সরানোর কোন সম্ভাবনাই নেই।

সংবাদ সম্মেলনে আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মুহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল, দপ্তর সম্পাদক ড. আবদুস সোবহান গোলাপ, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক ইঞ্জিনিয়ার আব্দুস সবুর, উপ-প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক আমিনুল ইসলাম আমিন, উপ-দপ্তর সম্পাদক বিপ্লব বড়ুয়া, কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য গোলাম রাব্বানী চিনু, রিয়াজুল কবির কাওছার ও মারুফা আক্তার পপি প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।  

Post a Comment

বাংলাদেশ

[National][fbig1]

ঢাকা উত্তর

[Dhaka North][slider2]

ঢাকা দক্ষিন

[Dhaka South][slider2]

আন্তর্জাতিক

[International_News][gallery2]

ঢাকা উপজেলা

[Dhaka Upazila][fbig2 animated]

রাজনীতি

[political_news][carousel2]

অপরাধ

[Crime][slider2]
Powered by Blogger.