আতিয়া মহলে জঙ্গি আছে এমন সন্দেহে বৃহস্পতিবার দিবাগত রাতে পাঁচতলা ওই ভবনের নিচতলার একটি ফ্ল্যাটে তালা দেয় পুলিশ। শুক্রবার সকালে ভবনের ভেতর থেকে বোমা বিস্ফোরণের পর আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী নিশ্চিত হয়, ভেতরে জঙ্গিদের আস্তানা রয়েছে।

জিয়া-মুসাকে নিয়ে থেকে গেল রহস্য
সেদিন বিকেলে অভিযানে আসেন বিশেষায়িত বাহিনী সোয়াতের সদস্যরা। এরপর গুঞ্জন ছড়িয়ে পড়ে, আতিয়া মহলের ভেতরে শক্তিশালী জঙ্গিরা অবস্থান করছে। শনিবার সকালে যখন সেনাবাহিনী অভিযান শুরু করে, তখন গুঞ্জনের ডালপালা আরও মেলতে থাকে যে, আতিয়া মহলে নব্য জেএমবির নেতা মাঈনুল ইসলাম মুসা ও শীর্ষ জঙ্গি মেজর সৈয়দ জিয়াউল হক রয়েছে। ভেতরে থাকা কথিত মর্জিনা নামের মহিলা ছদ্মনামে রয়েছেন এবং তিনি আসলে মুসার স্ত্রী এমন গুঞ্জনও ছড়াতে থাকে। তবে শেষ পর্যন্ত জিয়া, মুসা কিংবা মর্জিনাকে নিয়ে রহস্য থেকেই গেছে।

গতকাল সন্ধ্যায় প্রেস ব্রিফিং করা হয় সেনাবাহিনীর পক্ষ থেকে। ব্রিগেডিয়ার জেনারেল ফখরুল আহসান বলেন, আতিয়া মহলে অভিযানে চার জঙ্গি নিহত হয়েছে। এর মধ্যে তিনজন পুরুষ ও একজন মহিলা। সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, নিহত জঙ্গিদের মধ্যে মুসা বা জিয়া আছে কি না তা নিশ্চিত করে বলা যাচ্ছে না। এদের মধ্যে কোনো শীর্ষ সন্ত্রাসী আছে কি না পুলিশ-র‌্যাব তা শনাক্ত করবে।

সেনাবাহিনীর পক্ষ থেকে হস্তান্তর করা দুই জঙ্গির কারও পরিচয় শনাক্ত করা গেছে কি না, এমন প্রশ্নে সিলেট মহানগর পুলিশের অতিরিক্ত কমিশনার এস এম রোকন উদ্দিন বলেন, ‘এখনো আমরা শনাক্ত করতে পারিনি। শনাক্তের চেষ্টা চলছে।

Post a Comment

বাংলাদেশ

[National][fbig1]

ঢাকা উত্তর

[Dhaka North][slider2]

ঢাকা দক্ষিন

[Dhaka South][slider2]

আন্তর্জাতিক

[International_News][gallery2]

ঢাকা উপজেলা

[Dhaka Upazila][fbig2 animated]

রাজনীতি

[political_news][carousel2]

অপরাধ

[Crime][slider2]
Powered by Blogger.