সারা দেশে টানা দ্বিতীয় দিনের মতো চলছে পরিবহন ধর্মঘট।  বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশনের ডাকা এ ধর্মঘটের কারণে রাজধানীসহ সারা দেশে গণপরিবহন চলাচল বন্ধ রয়েছে। 

পরিবহন ধর্মঘটে সারা দেশে জনজীবনে চরম দুর্ভোগ নেমে এসেছে

 আর এতে চরম দুর্ভোগে পড়েছে সাধারণ মানুষ। পরিবহন না থাকার কারণে হেঁটে গন্তব্যে যেতে হচ্ছে তাদের।  স্বল্প দূরত্বের যাত্রীরা হেঁটে গন্তব্যে যেতে পারলেও দূরপাল্লার যাত্রীরা চরম বিপাকে পড়েছেন। জরুরি প্রয়োজন সত্ত্বেও যেতে পারছেন না তারা।  অনেক কাঠখড় পুড়িয়ে গন্তব্যে পৌঁছলেও বাড়তি কয়েকগুণ ভাড়া গুনতে হচ্ছে তাদের।

ধর্মঘটের দ্বিতীয় দিন বুধবার (১ মার্চ) রাজধানীর সায়েদাবাদ বাস টার্মিনালে সরেজমিনে দেখা যায়, আন্তজেলার সব বাস কাউন্টার বন্ধ রয়েছে। পরিবহন শ্রমিকরা রাস্তায় অবস্থান গ্রহণ করেছে।  যাত্রীবাহী কোনো বাস চলাচল করতে দিচ্ছে না তারা। ধর্মঘটের প্রথম দিন মঙ্গলবার শহর এলাকায় সীমিত পর্যায়ে গণপরিবহন চলাচল করতে দেখা গেলেও বুধবার তাও বন্ধ রয়েছে।  ফলে কর্মস্থলে পৌঁছতে পায়ে হেঁটেই যাচ্ছেন বেশির ভাগ কর্মজীবী।

বাস চলাচল বন্ধ থাকায় কয়েকগুণ বেশি ভাড়া হাঁকছেন রিকশাচালকরা। স্বাভাবিক সময়ের তুলনায় দুই থেকে তিনগুণ বেশি ভাড়া দাবি করছেন তারা।  নিরূপায় যাত্রীদের বাড়তি দামেই যেতে হচ্ছে গন্তব্যে।  ধর্মঘটের কারণে রাজধানীর বিভিন্ন সড়কে ভ্যানগাড়ি চলাচল করতে দেখা গেছে।  রাজধানীর যাত্রাবাড়ী, সায়দাবাদ থেকে গুলিস্তান পর্যন্ত ভ্যানে করে অনেকেই কর্মস্থলে যাচ্ছেন। প্রতিটিতে ৭-৮ জন করে যাত্রী বহন করছেন ভ্যানচালকরা।  সায়দাবাদ থেকে গুলিস্তান পর্যন্ত প্রতিটি যাত্রীর কাছ থেকে নেওয়া হচ্ছে ২০ টাকা করে।

এদিকে শুধু রাজধানী ঢাকা শহরেই নয়, গণপরিবহন বন্ধ থাকার কারণে সারা দেশেই জনদুর্ভোগ দেখা দিয়েছে।  পণ্য পরিবহন ব্যবস্থাও ভেঙে পড়েছে।  পরিবহন ধর্মঘটের আশু সমাধান না হলে দেশের অর্থনীতিতে বিরূপ প্রভাব পড়বে বলে আশঙ্কা করছেন সংশ্লিষ্টরা।

Post a Comment

বাংলাদেশ

[National][fbig1]

ঢাকা উত্তর

[Dhaka North][slider2]

ঢাকা দক্ষিন

[Dhaka South][slider2]

আন্তর্জাতিক

[International_News][gallery2]

ঢাকা উপজেলা

[Dhaka Upazila][fbig2 animated]

রাজনীতি

[political_news][carousel2]

অপরাধ

[Crime][slider2]
Powered by Blogger.