ইতিহাসে প্রথমবারের মতো বাঁশের কাঠামোয় টেলিযোগাযোগ টাওয়ার স্থাপন করেছে ইডটকো গ্রুপ। রাজধানীর উত্তরার ৫ নম্বর সেক্টরের একটি বাড়ির ছাদে সম্প্রতি এই টাওয়ার স্থাপন করা হয়। 


প্রথাগত টাওয়ারের বাইরে নিত্য নতুন উদ্ভাবনীমূলক পরিবেশ-বান্ধব টাওয়ার তৈরিতে ইডটকোর ধারাবাহিক গবেষণার আরেকটি নতুন সংযোজক বনজ সম্পদ বাঁশ দিয়ে তৈরি নবায়নযোগ্য এই অবকাঠামো।

বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় (বুয়েট) এর সাথে ইডটকো’এর যৌথ উদ্যোগ মূলত টেকসই এবং সবুজ প্রকৌশলকে আরো শক্তিশালী করবে।

বুয়েটের সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের অধ্যাপক ড. সৈয়দ ইশতিয়াক আহমেদের নেতৃত্বে একটি গবেষক দল টেলিযোগাযোগ অবকাঠামোর নকশা এবং নির্মাণে গতানুগতিক স্টিলের অবকাঠামোর বিকল্প উপাদান হিসাবে বাঁশের সক্ষমতার উপর গবেষণা কাজটি পরিচালনা করেন।

বিটিআরসি’র চেয়ারম্যান ড. শাহজাহান মাহমুদ বলেন, ‘টেলিযোগাযোগ সেবাগুলো আলাদা করার লক্ষে ভিন্ন টাওয়ার শেয়ারিং নীতিমালা প্রণয়ন করা হচ্ছে।’ মোবাইল ফোন অপারেটররা বিভিন্ন সেবা প্রদান করছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘শিগগিরই তারা টাওয়ারের মতো সেবাগুলো আর প্রদান করতে পারবে না।’
চেয়ারম্যান আরো বলেন, ‘বাঁশের তৈরি টাওয়ার যদি সফলতা লাভ করে তবে দেশিয় প্রযুক্তি হিসেবে এ খাতে প্রণোদনা দেওয়া হবে।’

টাওয়ারটি নির্মাণে নেতৃত্ব প্রদানকারী বুয়েটের অধ্যাপক ড. সৈয়দ ইশতিয়াক আহমেদ বলেন, ‘দেশে প্রথম বাঁশের তৈরি টেলিযোগাযোগ অবকাঠামো স্থাপিত হওয়ায় আমরা অত্যন্ত আনন্দিত। প্রাকৃতিক সম্পদে সমৃদ্ধ বাংলাদেশে বাঁশ একটি সহজলভ্য উপাদান। প্রযুক্তিগত অগ্রগতিতে অবদান রাখতে এ ধরনের প্রাকৃতিক সম্পদের ব্যবহার এ দেশের পরিবেশের সাথেও সামঞ্জস্যপূর্ণ। বাঁশের ব্যবহারের সম্ভাব্যতা যাচাই করে দেখা গেছে, বাঁশের বৈচিত্র্যময় গঠন বৈশিষ্ট্যের কারণে টেলিকম টাওয়ার তৈরির জন্য এটি একটি ভালো উপাদান হতে পারে। পরিবেশ সংরক্ষণের মাধ্যমে ও পরিবেশ সচেতন জাতি গঠনে এটি  অবদান রাখতে সক্ষম। এ ধরনের একটি উদ্যোগে আস্থা রাখার জন্য আমরা ইডটকো’কে ধন্যবাদ জানাই।’

Post a Comment

বাংলাদেশ

[National][fbig1]

ঢাকা উত্তর

[Dhaka North][slider2]

ঢাকা দক্ষিন

[Dhaka South][slider2]

আন্তর্জাতিক

[International_News][gallery2]

ঢাকা উপজেলা

[Dhaka Upazila][fbig2 animated]

রাজনীতি

[political_news][carousel2]

অপরাধ

[Crime][slider2]
Powered by Blogger.