ভারতের মধ্যপ্রদেশে এক ব্যক্তির পেটের ভেতর থেকে প্রায় ১২ হাজার পাথর বের করেছেন চিকিৎসকেরা। পেট ব্যথা নিয়ে ৪৬ বছর বয়সী মথুরার বাসিন্দা বিনোদ শর্মা সম্প্রতি ডাক্তারের কাছে যান।




এ সময় তার পেটের সিটি স্ক্যান করা হলেও পিত্তথলিতে পাথরের উপস্থিতি টের পাননি চিকিৎসকেরা। তবে পিত্তথলির আকার দ্বিগুণ মনে হওয়ায় অস্ত্রোপচারের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

আর সেই অস্ত্রোপচার করতে গিয়েই চোখ কপালে ওঠে চিকিৎসকদের। পিত্তথলিতে থাকা ভারি বস্তুটি আর কিছু নয়, প্রায় ১২ হাজার ছোট ছোট পাথর। আর তার ভারেই পিত্তথলি আকারে দ্বিগুণ হয়ে ঝুলে পড়েছিল। ভারতের গণমাধ্যম আনন্দবাজারের খবর, ছোট বড় নানা আকারের এসব পাথর গুনতেই লেগে যায় টানা ৩ দিন। হিসেব কষে দেখা যায়, প্রায় ১১ হাজার ৮১৬টি পাথর ছিল বিনোদ শর্মার পেটে।

বিনোদ শর্মার পেট ব্যথা অবশ্য নতুন ছিল না। প্রায় বছর দুয়েক ধরেই তার পেটে ছিল অসম্ভব ব্যথা। তবে ডাক্তার দেখিয়েও কোনো উপকার পাচ্ছিলেন না তিনি। নানা পরীক্ষাও করিয়েছিলেন। শেষে মথুরার সাওয়াই মান সিং হাসপাতালের দ্বারস্থ হন বিনোদ। সেখানেও যে চিকিৎসকেরা প্রথমেই আসল সমস্যা ধরতে পেরেছিল তাও নয়! সিটি স্ক্যানে অস্বাভাবিকতা দেখে তারা তা অপসারণের সিদ্ধান্ত নেয়। আর তখনই ধরা পড়ে পেট ব্যাথার আসল কারণ।

অস্ত্রোপচারের পর পিত্তথলির ভেতর থেকে বেরিয়ে আসে ২ থেকে ২.৫ মিলিমিটারের ১১ হাজারেরো বেশি গলস্টোন। চিকিৎসকেরা জানিয়েছেন, ১০ সেন্টিমিটারের পিত্তথলির মধ্যে এতগুলো পাথরের উপস্থিতি বিরল ঘটনা। পিত্তথলিতে এত পাথর জমলো কীভাবে তা জানতে ল্যাবরেটরিতে পাথরের নমুনা পাঠানো হয়েছে।

Post a Comment

বাংলাদেশ

[National][fbig1]

ঢাকা উত্তর

[Dhaka North][slider2]

ঢাকা দক্ষিন

[Dhaka South][slider2]

আন্তর্জাতিক

[International_News][gallery2]

ঢাকা উপজেলা

[Dhaka Upazila][fbig2 animated]

রাজনীতি

[political_news][carousel2]

অপরাধ

[Crime][slider2]
Powered by Blogger.