বেল নাকি কতবেল

বেল এবং কতবেল দুটো ফলেরই উপকারিতা বা অপকারিতা রয়েছে। যাঁরা মিষ্টিজাতীয় ফল পছন্দকরেন, তাঁরা বেল খেতে চান। আর যাঁরা টক পছন্দ করেন তাঁরা কতবেলটাই বেছে নেন। কতবেলএবং বেলের গুণাগুণ নিয়ে বলেছেন পুষ্টিবিদ আখতারুন্নাহার আলো।



বেলের গুণাগুণ

l প্রতি ১০০ গ্রাম বেলে রয়েছে পানি ৫৪.৯৬-৬১. ৫ গ্রাম, প্রোটিন ১.৮ মিলিগ্রাম, স্নেহ পদার্থ ০.২-০.৩৯ গ্রাম, শর্করা-২৮.১১-৩১.৮ গ্রাম, ক্যারোটিন-৫৫ মিলিগ্রাম, থায়ামিন-০.১৩ মিলিগ্রাম,নিয়াসিন-১.১৯ মিলিগ্রাম
l কোষ্ঠকাঠিন্য সারাতে বেলের ভূমিকা অনেক। বেল পেটের নানা অসুখ সারিয়ে তোলে।
l বেলে রয়েছে প্রচুর ভিটামিন সি।
l প্রচুর ফাইবার বা আঁশ থাকে, যা ব্রণ সারিয়ে তোলে।
l নিয়মিত বেল খেলে কোলন ক্যানসার হওয়ার আশঙ্কা কমে যায়।
l পেট ঠান্ডা রাখে। এ কারণে অনেকে গরমের সময় বেলের শরবত খায়।
l বেলের ভিটামিন এ চোখের অভ্যন্তরীণ ও বাহ্যিক অঙ্গগুলো ভালো রাখে।
কতবেলের গুণাগুণ
l প্রতি ১০০ গ্রাম কতবেলে রয়েছে পানি-৮৫.৬ গ্রাম, খনিজ-২.২ গ্রাম, আমিষ-৩.৫ গ্রাম, শর্করা-৮.৬ গ্রাম, ক্যালসিয়াম ৫৯ মিলিগ্রাম, ভিটামিন সি-১৩ মিলিগ্রাম
l হৃৎপিণ্ড ভালো রাখে।
l বদহজম দূর করে।
l কোথাও ঘা বা ক্ষত হলে কতবেল খেলে সেটা তাড়াতাড়ি সেরে যায়।
l কতবেলে রয়েছে ট্যানিন, যা অন্ত্রের কৃমি ধ্বংস করে।
l কতবেলে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন সি রয়েছে।
l কতবেল রক্ত পরিষ্কারে সহায়তা করে।

Post a Comment

বাংলাদেশ

[National][fbig1]

ঢাকা উত্তর

[Dhaka North][slider2]

ঢাকা দক্ষিন

[Dhaka South][slider2]

আন্তর্জাতিক

[International_News][gallery2]

ঢাকা উপজেলা

[Dhaka Upazila][fbig2 animated]

রাজনীতি

[political_news][carousel2]

অপরাধ

[Crime][slider2]
Powered by Blogger.