সুবিধাবঞ্চিত বাংলাদেশি বস্তির শিশুদের নিয়ে কাজ করার জন্য বর্ষসেরা নারীর পুরস্কার পেয়েছেন মারিয়া কনসেই। এই পর্তুগিজ নারী মারিয়া ক্রিস্টিনা ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠাতা।

ম্যান অব দ্য ইয়ার অ্যাওয়ার্ড পুরুষের পরিবর্তে একজন নারী !



পর্তুগালের জি কিউ ম্যাগাজিন মারিয়া কনসেইকে বর্ষসেরা নারীর পুরস্কারের ভূষিত করেছে। দ্য পর্তুগাল নিউজ ডটকমের এক প্রতিবেদনে এ কথা বলা হয়েছে।


বাংলাদেশের রাজধানী ঢাকার একটি বস্তির ১৭২ জন সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের শিক্ষাসহ বিভিন্ন সুযোগ-সুবিধা দেয় মারিয়া ক্রিস্টিনা ফাউন্ডেশন। মারিয়া কনসেই ‘তার পালক মা মারিয়া ক্রিস্টিনাকে এই পুরস্কার উৎসর্গ করেন।’ মারিয়া ক্রিস্টিনা ফাউন্ডেশন তার মায়ের অনুপ্রেরণাতেই তৈরি হয়েছে।


জি কিউ পর্তুগালের পুরুষদের সবচেয়ে বড় ফ্যাশন, সংস্কৃতি এবং জীবনধারা বিষয়ক একটি ম্যাগাজিন। ম্যাগাজিনটি সাধারণত ‘ম্যান অব ইয়ার’ অ্যাওয়ার্ড দিয়ে থাকে। কিন্তু, এ বছর একজন মানবপ্রেমিক নারীকে পুরস্কার দেওয়ার কারণ ব্যাখ্যা করে ম্যাগাজিনটি এক বিবৃতিতে বলেছে, জি কিউ পর্তুগাল ‘মারিয়ার সাফল্য দেখে এতই মুগ্ধ যে ইতিহাসে প্রথমবারের জন্য তারা ম্যান অব দ্য ইয়ার অ্যাওয়ার্ড পুরুষের পরিবর্তে একজন নারীকে দিয়েছে।’


সংযুক্ত আরব আমিরাতের এয়ারলাইনসে বিমানবালা হিসেবে কাজ করতে গিয়ে বাংলাদেশের চরম দারিদ্র্যের অবস্থা দেখেন মারিয়া। এরপরই মারিয়া কনসেই ২০০৫ সালে মারিয়া ক্রিস্টিনা ফাউন্ডেশন প্রতিষ্ঠা করেন।


চাকরির সুবাদে ২০০৩ সালে মারিয়া প্রথম বাংলাদেশে আসেন। বাংলাদেশে দরিদ্রদের অবস্থা দেখে তিনি তাদের সাহায্য করার জন্য মনস্থির করেন। এরপরই ২০০৫ সালের জুলাইয়ে পরিবার, সহকর্মী এবং বন্ধুদের সহায়তায় মারিয়া বাংলাদেশের দরিদ্র পরিবারকে সাহায্য করার জন্য একটি দাতব্য প্রকল্প শুরু করেন। এক কক্ষের একটি স্কুল দিয়ে তার ফাউন্ডেশনের যাত্রা শুরু হয়।


মারিয়া ২০০৫ সাল থেকে মানবিক প্রকল্পের মাধ্যমে শিশুদের জন্য বিনা মূল্যে শিক্ষা প্রদানের ওপর মনোযোগ দেন। কারণ তিনি মনে করেন এভাবে দারিদ্র্যের চক্র ভাঙা সম্ভব হবে।

Post a Comment

বাংলাদেশ

[National][fbig1]

ঢাকা উত্তর

[Dhaka North][slider2]

ঢাকা দক্ষিন

[Dhaka South][slider2]

আন্তর্জাতিক

[International_News][gallery2]

ঢাকা উপজেলা

[Dhaka Upazila][fbig2 animated]

রাজনীতি

[political_news][carousel2]

অপরাধ

[Crime][slider2]
Powered by Blogger.