মানুষ যখন ঘুমের দেশে, তখনো কথা বলে ওঠে কীভাবে ঘুমের ঘোরে পরিচিতজনকে কথা বলতে দেখে অনেকের মনেই এ প্রশ্ন উঠেছে৷ কিন্তু সদুত্তর মেলেনি৷ অনেকেই বলে থাকেন, এ আসলে একটা রোগ৷ কিন্তু সত্যিই কি তাই! কেন ঘুমের মধ্যেও কথা বলেন মানুষ?


চলতি ধারনা স্বপ্ন দেখার কারণেই ঘুমের মধ্যে কথা বলেন মানুষ৷ অনেক সময় তা বিড়বিড় করে৷ কিন্তু কখনো কখনো পরিষ্কার কথোপকথনও শোনা যায়৷ হালকা ঘুম বা গভীর ঘুম- যে কোনো অবস্থাতেই কথা বলে উঠতে পারেন মানুষ৷ তবে জেগে থাকা অবস্থা থেকে ‘নন ব়্যাপিড আই মুভমেন্ট’ বা জেগে থাকা অবস্থা থেকে ‘ব়্যাপিড আই মুভমেন্ট’-এর দিকে যখন মানুষ এগোয়, তখনই ঘুমের মধ্যে কথা বলার প্রবণতা বাড়ে৷ কিন্তু কেন এই ঘুমের বিভিন্ন অবস্থায় কথা বলে ওঠেন মানুষ? স্রেফ স্বপ্ন দেখার কারণেই এ জিনিস হয় না৷ এর পেছনে থাকে বিভিন্ন কারণ৷ ন্যাশনাল স্লিপ ফাউন্ডেশনের মতে উদ্বেগ, ডিপ্রেশন, ঘুম কম হওয়া ইত্যাদির কারণে এই প্রবণতা দেখা যায়৷ কখনো অ্যালকোহলের প্রভাবও কাজ করতে পারে৷ এছাড়া প্রচণ্ড জ্বরের মতো অসুখ হলেও ঘুমের মধ্যে কথা বলার প্রবণতা দেখা যায়৷ বংশগত কারণেও অনেকে এ কাজ করে থাকেন৷ তবে সবথেকে গুরুত্বপূর্ণ দিকটি হল, ‘নাইট টেরর’ ৷ কোনো কারণে রাত বা ঘুম নিয়ে যদি কারও ফোবিয়া থাকে, তা থেকেও এই প্রবণতা তৈরি হতে পারে৷ সেক্ষেত্রে সঠিক কারণটা খুঁজে পাওয়া জরুরি৷ সাধারণভাবে এ কোনো অসুখ নয়৷ কিন্তু ঘুমের ব্যাঘাত যদি ঘটে তাহলে নানারকম শারীরিক অসুবিধা হতে পারে৷ সেক্ষেত্রে চিকিৎসকের পরামর্শ নেওয়া বাঞ্ছনীয়৷ এছাড়া ফোবিয়া থাকলে মনোবিদের পরামর্শ নিলে মূল সমস্যাটিই সমূলে নির্মূল হবে৷ 

Post a Comment

বাংলাদেশ

[National][fbig1]

ঢাকা উত্তর

[Dhaka North][slider2]

ঢাকা দক্ষিন

[Dhaka South][slider2]

আন্তর্জাতিক

[International_News][gallery2]

ঢাকা উপজেলা

[Dhaka Upazila][fbig2 animated]

রাজনীতি

[political_news][carousel2]

অপরাধ

[Crime][slider2]
Powered by Blogger.