আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ বলেছেন, ‘নিজামীর ফাঁসি হওয়ায় নেতিবাচক প্রতিক্রিয়া জানিয়েছে পাকিস্তান, কারণ মুক্তিযুদ্ধের সময় তাদের অপকর্মের সহযোগী ছিলো নিজামীদের মতো নরপিশাচরা।’




বৃহস্পতিবার বিকেলে রাজধানীর কামরাঙ্গীরচরে নবগঠিত ঢাকা মহানগর উত্তর ও দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি-সাধারণ সম্পাদককে দেওয়া এক সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।

হানিফ বলেন, ‘তাদের এই ধৃষ্টতার তীব্র ধিক্কার জানাই। ফের যদি তারা এই ধরনের সাহস দেখায়, তবে দেশটির সঙ্গে কূটনৈতিক সম্পর্ক আমরা রাখবো কিনা তা বাংলার জনগণ ভেবে দেখবে।’

তিনি বলেন, ‘পাকিস্তানের যদি এতই দরদ, তবে তাদের দোসরদের নিয়ে গিয়ে তাদের দেশের নাগরিকত্ব দিক। আমরা এই দেশে কোনো যুদ্ধাপরাধী ও পাকিস্তানের প্রেতাত্মা দেখতে চাই না।’

হানিফ আরো বলেন, ‘শীর্ষ যুদ্ধাপরাধীদের ফাঁসি হওয়ার পর প্রত্যেকবার বিএনপি নেত্রী চুপ ছিলেন। এবারও তিনি চুপ আছেন। কিন্তু আমি ব্যাকুল হয়ে অপেক্ষা করছি, নিজামীর ফাঁসি নিয়ে তার প্রতিক্রিয়া জানার। কারণ এবার তো তার ঘনিষ্ট রাজনৈতিক মিত্রের ফাঁসি হয়েছে। যে শীর্ষ রাজাকারকে তিনি মন্ত্রী বানিয়েছিলেন। ত্রিশ লক্ষ শহীদের সঙ্গে বেঈমানি করে যার গাড়িতে জাতীয় পতাকা তুলে দিয়েছিলেন।’

আওয়ামী লীগের কৃষি বিষয়ক সম্পাদক আবদুর রাজ্জাক বলেন, ‘খালেদার প্রতিটি কর্মকাণ্ডই মিথ্যাচারে ভরপুর। তাই তিনি এখন আর আপোষহীন নেত্রী নন বরং মিথ্যাচারের নেত্রী। তাকে বলতে চাই, জামায়াত, ইসরায়েল, পাকিস্তানসহ দেশি-বিদেশি যতবড় শক্তি নিয়ে চক্রান্ত করেন না কেন কোনো লাভ হবে না। সব অপশক্তিই আমাদের পায়ের নীচে পরাভূত হতে বাধ্য। আর খালেদা জিয়া যদি তার ষড়যন্ত্র বন্ধ না করেন তবে বিচারের মাধ্যমে কারাবরণ অপেক্ষা করছে তার জন্য।’

Post a Comment

বাংলাদেশ

[National][fbig1]

ঢাকা উত্তর

[Dhaka North][slider2]

ঢাকা দক্ষিন

[Dhaka South][slider2]

আন্তর্জাতিক

[International_News][gallery2]

ঢাকা উপজেলা

[Dhaka Upazila][fbig2 animated]

রাজনীতি

[political_news][carousel2]

অপরাধ

[Crime][slider2]
Powered by Blogger.