আওয়ামী লীগের লক্ষ্য দেশের সুষম উন্নয়ন উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশের সাধারণ মানুষের ভাগ্যোন্নয়নেই আজীবন কাজ করে যাওয়ার আকাঙ্ক্ষা ব্যক্ত করেছেন। তিনি বলেন, ‘দুর্নীতি করে ভাগ্য গড়তে আসিনি। আমি জাতির পিতার কন্যা। রাজনীতি করছি নিজের ভাগ্য উন্নয়নের জন্য নয়, মানুষের কল্যাণে। বাকিটা জীবন সেটাই করে যাব।’

 

বিএনপির উদ্দেশে শেখ হাসিনা বলেন, তারা দেশে উন্নয়ন চায় না, এটাই বাস্তবতা। তারা পারে শুধু মানুষ পোড়াতে, গুপ্তহত্যা করতে। তারা হত্যা আর ধ্বংস ছাড়া আর কিছুই করে না।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আজ শনিবার দুপুর পৌনে ১২টায় গোপালগঞ্জ সদর উপজেলার ঘোনাপাড়ায় শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব চক্ষু হাসপাতাল ও প্রশিক্ষণ কেন্দ্রের উদ্বোধনকালে আয়োজিত সমাবেশে এসব কথা বলেন। এই প্রতিষ্ঠান সম্পর্কে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘আশা করি, এই চিকিৎসাকেন্দ্র মানবসেবায় অবদান রাখবে।’ তিনি আরেক দিন এখানে চোখের চিকিৎসার জন্য আসবেন বলেও জানান।

বঙ্গবন্ধু ও তাঁর পরিবারের সদস্যদের মহান আত্মত্যাগের কথা স্মরণ করে শেখ হাসিনা বলেন, ‘এই দেশের মানুষের জন্য আমার বাবা-মা, ভাইবোন সবাই জীবন দিয়ে গেছেন। আমি সব হারিয়েছি। আমার তো আর হারাবার কিছু নেই। চাওয়া-পাওয়ার কিছু নেই। এখন এ দেশের মানুষের জন্য কিছু করতে চাই।’ তিনি আরও বলেন, ‘বাংলাদেশের উন্নয়নকে অনেকে বিস্ময় বলেন। আমি বলি এটি বিস্ময় নয়, বিশ্বাস। জনগণের প্রতি বিশ্বাস। এই বিশ্বাস আছে বলেই দেশের উন্নতি করতে পারছি। নিয়ত ভালো বলে যেখানেই হাত দিচ্ছি, সেখানেই সাফল্য অর্জন করছি।’

শেখ হাসিনা বলেন, বিএনপি-জামায়াত পদ্মা সেতু নিয়ে ষড়যন্ত্র না করলে এত দিনে এই সেতুর নির্মাণকাজ আরও এগিয়ে যেত।

Post a Comment

বাংলাদেশ

[National][fbig1]

ঢাকা উত্তর

[Dhaka North][slider2]

ঢাকা দক্ষিন

[Dhaka South][slider2]

আন্তর্জাতিক

[International_News][gallery2]

ঢাকা উপজেলা

[Dhaka Upazila][fbig2 animated]

রাজনীতি

[political_news][carousel2]

অপরাধ

[Crime][slider2]
Powered by Blogger.